নারীর ক্যানসারের ঝুঁকি

41
Smiley face

জরায়ুমুখের ক্যানসার

কম বয়সে বিয়ে, বেশি সন্তানের জন্মদান, ঠিকমতো পরিষ্কার–পরিচ্ছন্নতা বজায় না রাখা, বহুবিবাহ এই ক্যানসারের ঝুঁকি বাড়ায়। এটি প্রতিরোধ করতে তাই জনসচেতনতা এবং সবার অংশগ্রহণ জরুরি। ধূমপান পরিহার করতে হবে, জর্দা–সাদা পাতা–গুল বর্জন করতে হবে। এ ছাড়া পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা বজায় রাখতে হবে, সুশৃঙ্খল জীবনযাপন ও সামাজিক অনুশাসন মেনে চলতে হবে। নারীদের নিয়মিত পেপস স্মেয়ার পরীক্ষাও করা প্রয়োজন। এতে রোগ আগেভাগে শনাক্ত করা সম্ভব হবে। এখন এই রোগ প্রতিরোধে টিকাও আছে।

পায়ুপথের ক্যানসার

এই ক্যানসার পুরুষদের বেশি হয়। তবে নারীদের ক্ষেত্রে সংকোচ আর লজ্জার কারণে এই ক্যানসার ধরা পড়ে একেবারে শেষ পর্যায়ে। প্রাথমিক পর্যায়ে ধরা পড়লে স্তন ক্যানসারের মতো পায়ুপথের ক্যানসারও নিরাময়যোগ্য। পায়ুপথে যদি তাজা রক্ত না গিয়ে মরা রক্ত, আমযুক্ত রক্ত, পেটে মোচড় দিয়ে অথবা কালো দুর্গন্ধযুক্ত পায়খানা হয়, তাহলে সচেতন হতে হবে। পায়ুপথ দিয়ে ব্যথাহীন রক্তপাতকে কিছুতেই অবহেলা করা চলবে না। মনে রাখবেন, বেশির ভাগ ক্যানসারে প্রাথমিকভাবে ব্যথা থাকে না।

মুখের ক্যানসার

অনেক নারীই পান, গুল, তামাক, জর্দা সেবন করেন। এতে মুখ ও মুখগহ্বরের ক্যানসারের ঝুঁকি অনেক বেড়ে যায়। পাশাপাশি প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষ ধূমপানেও ঝুঁকি বাড়ে। এসব কারণে ফুসফুসের ক্যানসার ছাড়াও স্তন এবং অন্যান্য ক্যানসারের ঝুঁকি বাড়ে। মুখে ঘা হলে এবং তা দীর্ঘদিনে না সারলে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে।

‍সূত্র:প্রথম আলো


Smiley face