নতুন গরু পেয়ে খুশির আনন্দে ভাসছে অর্থি

70
Smiley face

কান্নার বদলে খুশিতে হাসছে অর্থি। নতুন সঙ্গী পেয়ে আনন্দে উচ্ছ্বসিত মেয়েটি। গত সোমবার (৩ আগস্ট) দুপুরে দাদা ও বাবার সঙ্গে নিজে হাটে গিয়ে বাছাই করেছিল আগের গরু নবাবের মতো দেখতে একটা ছোট্ট গরুকে। তারপর অর্থি চলে এসেছিল বাড়ি। সেদিন বিকেলে সেই গরুই চলে এল তার বাড়িতে। তুলে দেওয়া হলো তারই হাতে। খুশিতে ডগমগ অর্থি নতুন গরুটার নাম রেখেছে ‘ছোট নবাব’।

ঈদের আগের দিন ৩১ জুলাই প্রথম আলোর প্রথম পৃষ্ঠায় ছাপা হয় ফটোসাংবাদিক রাফিদ ইয়াসারের তোলা অর্থির কান্নার ছবি।
নিজের খেলার সঙ্গী নবাবকে বিক্রি করে দেওয়ার পর তাকে জড়িয়ে ধরে সে হাউমাউ করে কাঁদছিল।

‘অর্থি কেন কাঁদছিল’ শিরোনামে সে খবর দেশজুড়ে সাড়া ফেলে। অনেকে প্রথম আলোর ঢাকা অফিস, বগুড়া অফিস আর রাফিদ ইয়াসারকে ফোন করে মেয়েটিকে সাহায্য করতে চান। মো. মাহবুবুর রহমান (এইচএসবিসি ব্যাংকের প্রধান নির্বাহী) ব্যক্তিগতভাবে যোগাযোগ করেন প্রথম আলোর সঙ্গে। তাঁরই আর্থিক সহযোগিতায় ঈদের দুদিনের মাথায় সোমবার অর্থিকে নতুন গরু কিনে দেওয়া হয়।

ছবি ও রিপোর্টঃ প্রথম আলো’র সৌজন্যে।


Smiley face