শত্রুতা করে দুই বিঘা জমির হাইব্রিট ঘাস ও ৮০ টি লেবুগাছ ধ্বংস করলো বখাটে

56
Smiley face

রাজশাহী কাটাখালী শ্যামপুরে জাতীয় পুরস্কার প্রাপ্ত একজন খামারীর দুই বিঘা জমির ঘাস ও ৮০ টি লেবু গাছ, ছাগলদিয়ে খাইয়ে ব্যাপক ক্ষতি করেছে স্হানীয় বখাটে যুবক তারান মিয়া ও তার স্ত্রী ।
গরু মোটাতাজা করনের জন্য ঘাসগুলো লাগিয়েছিলেন স্হানীয় একজন খামারী।

সওদাগর এগ্রোর স্বত্বাধিকারী আরাফাত রুবেল। গরুর খাদ্যের জন্য শ্যামপুর আবহাওয়া অফিসের সামনে খালেকের হোটেলের পেছনে দুই বিঘা জায়গা জনৈক মিলন নামের এক ব্যাক্তির নিকট হতে লিজ নিয়ে সবুজ ঘাস ও লেবুর চাষ করেছিলেন।

স্হানীয় বখাটে জালাল উদ্দীনের ছেলে তারান মিয়া ও তার স্ত্রী তাদের গৃহপালিত ৫/৬ টি ছাগল দ্বারা প্রতিদিন বেড়া ভেঙ্গে ফসলের ব্যাপক ক্ষয় ক্ষতি করে আসছে। এ ব্যাপারে তাদের বারবার অনুরোধ করেও কোন সুফল পাচ্ছিলেননা খামারের মালিক। সর্বশেষ গত দুই দিন আগে হিংসাপরায়ন হয়ে তারান মিয়া ও তার স্ত্রী ঘাস কেটে নিয়ে যায়। এবং লেবু গাছ সহ নিরাপত্তা বেষ্টিত বাঁশের বেড়া ভাংচুর করে।

তাতে প্রায় লক্ষাধিক টাকার ক্ষয় ক্ষতি হয় বলে খামার মালিক জানান। তারান মিয়া ফোনে গরুর খামার ও ঘাসের ফসলি জমি উড়িয়ে দেওয়ার হুমকি দেয়।
এবং খামারের রাখাল রনি আহমেদকেও হুমকি দিয়ে বলে, তার কথা না শুনলে অত্র এলাকায় গরু পুষতে পারবেনা।

এ ব্যাপারে কাটাখালী থানায় লিখিত অভিযোগ করা হয়েছে। কাটাখালি থানার ওসি জিল্লুর রহমান বলেন, অভিযোগ পেয়েছি বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। অবশ্যই আইনগত ব্যাবস্হা নেওয়া হবে।


Smiley face